তারিখ : ১৮ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

নান্দাইলে বয়স্ক ভাতার কার্ড যেন সোনার হরিণ

নান্দাইলে একটি বয়স্ক ভাতার কার্ড যেন সোনার হরিণ,এমপি'র সুপারিশেও কাজ হয়নি
[ভালুকা ডট কম : ২৬ মে]
ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার মোয়াজ্জেমপুর ইউনিয়নের কামালপুর গ্রামের মৃত আইয়ুব আলীর পুত্র মোঃ নিবশ আলী (৮১) কে একটি বয়স্ক ভাতার কার্ড দেয়ার জন্য গত ১৭ই জুন ২০১৭ সালে ২নং মোয়াজ্জেমপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবু বক্কর সিদ্দীকের বরাবর সুপারিশ করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য। দীর্ঘ এক বছর হতে চললেও হত দরিদ্র নিবশ আলীর কপালে আজ পর্যন্ত কার্ড জোটেনি।

নিবশ আলী জানায়, অনেক বার চেয়ারম্যানের সাথে যোগাযোগ করেছি,প্রথমদিকে দেওয়ার আশ্বাস দিলেও সর্বশেষ গত মার্চ মাসে চেয়ারম্যান আমাকে জানাল আমি কার্ড দিতে পারব না। দুঃখ করে বলেন "আমাকে কি চেয়ারম্যান খাওয়াইতে পারবো আল্লাহ  আমাকে খাওয়াইব "চেয়ারম্যানের সাথে কথা বললে তিনি জানান, আমি কয়টা কার্ড দিব আরও 'তো বয়স্ক লোক আছে, এমপি তো আরও সুপারিশ করে। বিষয়টি মেসেঞ্জার'এ সংসদ সদস্য'কে জানালে তিনি কোন উত্তর দেননি।

নান্দাইল সমাজ সেবা অফিসের তথ্য মতে চলতি অর্থ বছরে মোয়াজ্জেমপুর ইউনিয়নে ৭৬ টি কার্ড প্রদান করা হয়েছে। তবে নিবশ আলীর মত হতদরিদ্র ব্যক্তির একটি বয়স্ক ভাতার কার্ড প্রয়োজন এলাকাবাসী মনে করেন।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

লাইফস্টাইল বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫৩৪ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই